প্রয়োজনে জীবন দিয়ে হলেও প্রধানমন্ত্রীর কর্মসূচি বাস্তবায়নে কাজ করে যাবো:তরিকুল

0

নিজাম উদ্দিন শামীম:

দলের প্রয়োজনে ও প্রধানমন্ত্রীর নির্বাচনি কর্র্মসূচি বাস্তবায়নে জীবন দিয়ে হলেও কাজ করে যাবে জগন্নাথ বিশ্ববিদ্যালয় ছাত্রলীগ । বাংলাদেশ ছাত্রলীগের  জগন্নাথ বিশ্ববিদ্যালয় শাখা ছাত্রলীগ সভাপতি তরিকুল ইসলামের বিডিজার্নাল৩৬৫ডটকমের সাথে একান্ত সাক্ষাৎকারে তিনি এসব কথা বলেন । এছাড়াও আগামীতে দলের কর্মসূচি ও বিশ্ববিদ্যালয় নিয়ে তার কেমন চিন্তা ভাবনা কেমন হবে এ সম্পর্কিত ব্যাপক আলোচনা করা হয় ।

বিডিজার্নাল : সম্মেলনের প্রায় ৭ মাস পর নতুন কমিটি ঘোষণা করা হল এতে সভাপতি হিসেবে দায়িত্ব পাওয়ায় আপনার অনুভূতি কেমন?

তরিকুল: দীর্ঘদিন ধরে ক্যাম্পাসে কমিটি না থাকার কারনে দলের সাংগঠনিক কাঠামো দূর্বল হয়ে পড়ছিল , যার কারনে দলের সাংগঠনিক কাঠামো চাঙ্গা করতে নতুন কমিটি ঘোষণা করার প্রয়োজনীয়তা বেড়ে যায় । অবশেষে দীর্ঘ প্রতিক্ষার পর কমিটিতে সভাপতি হিসেবে মনোনীত হওয়ায় খোদার কাছে শুকরিয়া আদায় করছি ।

বিডিজার্নাল : বিগত কমিটিতে ক্যাম্পাসে বিশৃঙ্খলা সৃষ্টি হতে দেখা যায় এর প্রভাব নতুন কমিটিতে পড়বে কী?

তরিকুল: সৎ, যোগ্য,আদর্শবান এবং পরিশ্রমী কর্মীরাই নতুন কমিটিতে স্থান পেয়েছে এবং নির্বাচিত হয়েছে তাই বিগত কমিটি গুলোতে ক্যাম্পাসে বিশৃঙ্খলা পরিস্থিতি সৃষ্টি হওয়ার অভিযোগ আসলেও নতুন কমিটিতে তা ঘটার কোনো সুযোগ নেই।

বিডিজার্নাল : বিশ্ববিদ্যালয়ে সাধারণ শিক্ষার্থীদের নানা সংকট এবং সীমাবদ্ধতার আছে এসব সংকট ও সীমাবদ্ধতা দূর করণে ছাত্রলীগ কি ভুমিকা নেবে?

তরিকুল: আপনারা অবগত আছেন যে বিশ্ববিদ্যালয় দিবসে ছাত্রলীগের পক্ষ থেকে ১১ দফা দাবি পেশ করা হয়েছে । এর মধ্যে অন্যতম কয়েকটি দাবি ছিল অনতিবিলম্বে বিশ্ববিদ্যালয় গ্র্যাজুয়েট শিক্ষার্থীদের সমাবর্তনের ব্যাবস্থা করতে হবে । শিক্ষক নিয়োগে বিশ্ববিদ্যালয় শিক্ষার্থীর মধ্য থেকে ৭০ শতাংশ শিক্ষক নিয়োগ করতে হবে । এছাড়াও ক্যান্টিনে খাবারের মান উন্নত করার জন্য ছাত্রলীগের পক্ষ থেকে ক্যান্টিন প্রধানকে অবহিত করা হয়েছে।

বিডিজার্নাল : বিশ্ববিদ্যালয় প্রতিষ্ঠার পর থেকে ছাত্র সংসদ নির্বাচন হচ্ছে না ,ছাত্রসংসদ নির্বাচন প্রতিষ্ঠায় আপনার অভিমত কী?

তরিকুল: প্রত্যেকটি বিশ্ববিদ্যালয় ছাত্রসংসদ থাকা উচিত বলে আমি মনে করি কারন ছাত্রসংদের মাধ্যমে মেধাবিরা নির্বাচন করা সুযোগ পায়। এর মাধ্যমে আদর্শ এবং সৎ রাজনীতিবিদ উঠে আসে। তবে জগন্নাথে নানা সীমাবদ্ধতার কারনে এখনো গড়ে উঠেনি।

বিডিজার্নাল : আগামী সংসদ নির্বাচনী কর্মসূচি বাস্তবায়নে দলের অংশ হিসেবে জবি ছাত্রলীগ কর্মসূচি বাস্তবায়নে কী ধরনের পদক্ষেপ নিবে?

তরিকুল: মাননীয় প্রধানমন্ত্রী দেশরতœ শেখ হাসিনার নেতৃত্বে বাংলাদেশ আজকে বিশ্বের কাছে রোল মডেল হওয়ার সৌভাগ্য অর্জন করেছে । তাই আগামী আসন্ন নির্বাচনে দলের অংশ হিসেবে কর্মসূচি বাস্তবায়নে সর্বাত্মক প্রচেষ্ঠা চালাবে জগন্নাথ বিশ্ববিদ্যালয় ছাত্রলীগ প্রয়োজনে জীবন দিয়ে হলেও বাস্তবায়নে কাজ করে যাবে ।

বিডিজার্নাল : কমিটি দেওয়ার পর একমাস অতিবাহিত হয়েছে এ একমাসে আপনারা কী কী কর্মসূচি পালন করেছেন?

তরিকুল: প্রথমত এ একমাসে আমরা শিক্ষার্থীদের মাঝে পারস্পরিক পরিচিতি বাড়াতে ব্যাচ ভিত্তিক ‘পরিচিতি সভা’ করেছি এছাড়াও শেখ রাসেলের জন্মদিনে ছাত্রলীগের পক্ষ থেকে মিলাদ মাহফিল ও দোয়ার আয়োজন করা হয় । যা এখন পর্যন্ত অন্য কোনো বিশ্ববিদ্যালয় করেনি আমরাই প্রথম মিলাদ মাহফিলের আয়োজন করেছি।

সাব্বির// এসএমএইচ//বৃহস্পতিবার ১৬ নভেম্বর ২০১৭। ২ অগ্রহায়ণ ১৪২৪   

Share.

Comments are closed.