নওগাঁয় সরকারী মৎস্য খামারে অবকাঠামো নির্মাণে অনিয়মের অভিযোগ

0

নওগাঁ প্রতিনিধি :

নওগাঁয় জেলা সদরে অবস্থিত সরকারী মৎস্য উৎপাদন খামারে অবকাঠামো নির্মাণে দুর্নীতির অভিযোগ উত্থাপিত হয়েছে। কত টাকার কাজ এবং কিসের ভিত্তিতে এই কাজ করা হচ্ছে এ ব্যপারে স্থানীয় সাংবাদিকরা জানতে চাইলে তাদের সাথে দুর্ব্যাবহার করেছেন মৎস্য খামার ব্যবস্থাপক।

জানা গেছে, শহরের দক্ষিণ প্রান্তে দুবলহাটি সড়কে সরকারী এই মৎস্য খামারের অবস্থান। এই খামারে অনেকগুলো পুকুর রয়েছে যেগুলোতে পোনা উৎপাদন করে মৎস্যচাষীদের মধ্যে বিক্রি করা হয়। সম্প্রতি এসব পুকুর উন্নয়নে ১০ লাখ টাকা বরাদ্দ দেয়া হয়। এই অর্থে পুকুরগুলোর গাইডওয়াল নির্মাণের মাধ্যমে রক্ষনাবেক্ষন করার প্রকল্প।

কিন্তু খামার ব্যবস্থাপক কোন টেন্ডার না দিয়েই কিংবা কোন ঠিকাদারী প্রতিষ্ঠানকে না দিয়েই নিজ উদ্যোগে অবকাঠামো নির্মাণ শুরু করেন। এ ক্ষেত্রে নি¤œমানের সামগ্রী ব্যবহার করা হচ্ছে। কোন পরিকল্পনা ছাড়াই নির্মাণ কাজ সম্পন্ন করা হচ্ছে বিধায় এই কাজের স্থায়িত্ব নিয়ে জনমনে ব্যাপক প্রশ্ন দেখা দিয়েছে।

এ ব্যপারে উক্ত খামার ব্যবস্থাপক মোঃ মাহফুজুর রহমানকে জিজ্ঞেস করলে তিনি বলেন, এলজিইডি এই কাজ করছে। এলজিইডি অফিসে খোঁজ নিয়ে জানা গেছে তারা এই প্রকল্প বাস্তবায়ন করছেন না। পুনরায় এ ব্যপারে খামার ব্যবস্থাপক মাহফুজুর রহমানের নিকট এই হয়রানীর কারণ জানতে চাইলে তিনি বলেন সরকারী টাকার উপড় আপনাদের এত দরদ কেন এটা আপনাদের টাকা বেশি পাইকো না বলে দুর্ব্যবহার করেন সংবাদকর্মীর সঙ্গে।

জেলা মৎস্য কর্মকর্তা মোঃ আব্দুল হান্নানের নিকট এ ব্যপারে জানতে চাইলে তিনি বলেন এই প্রকল্প সম্পর্কে তিনি কিছুই জানেন না।

উল্লেখ্য, এই খামার ব্যবস্থাপক বিগত ১৫ বছর ধরে এই খামারে একনাগারে চাকুরী করছেন। মাঝখানে তাকে অন্যত্র বদলী করা হলে সে বদলীর বিরুদ্ধে আদালতে মামলা দায়ের করে বদলী ঠেকিয়ে রেখেছে। মামলা করে বদলী ঠেকিয়ে রাখার দৃষ্টান্তর তিনি। একই কর্মস্থলে দীর্ঘদিন চাকুরী করতে হবে কেন এ নিয়েও জনমনে প্রশ্ন দেখা দিয়েছে।

কাওছার আক্তার মুক্তা// এসএমএইচ// বৃহস্পতিবার ১৪ ডিসেম্বর ২০১৭ ৩০ অগ্রহায়ণ ১৪২৪

Share.

Comments are closed.