মহেশখালী ধলঘাটার জেটিঘাটটি  মরণ ফাঁদে পরিণত দেখার কেউ নেই

0

সরওয়ার কামাল, মহেশখালীঃ

মহেশখালী উপজেলার ধলঘাটার জেটিঘাটটি মরণ ফাঁদে পরিণত হয়েছে । প্রতি বছর সরকার উপকূলীয় এলাকার জন্য কোটি কোটি টাকা বরাদ্দ দিলে ও এই এলাকায় উন্নয়নের ছোঁয়া লাগেনি।  ধলঘাটা ইউনিয়নে মেগা প্রকল্প অর্থনৈতিক জোন ঘোষনা করেছেন সরকার। ইতিমধ্যে কয়েকটি প্রকল্পের তোড়জোড় শুরু হয়েছে। তার পরেও ভাগ্য কখনো ফিরে না ধলঘাটা উপকূলের হতভাগা বাসিন্দাদের।
ধলঘাটা ইউনিয়ন আওয়ামীলীগের সভাপতি ছৈয়দুল আলম  বলেন,  ধলঘাটা ইউনিয়নের লোকজনের নদী পথ যোগাযোগ ব্যবস্থার অন্যতম নির্ভরযোগ্য পথ হলেও যুগযুগ ধরে  জেটি ঘাটটি  সংস্কার হয় নি ।
স্থানীয় সূত্রে জানাগেছে, সংস্কারও হচ্ছে না ভেঙ্গে ফেলাও হচ্ছে না। যার ফলে ঝুঁকিপূর্ণ জেটিতে প্রতিনিয়িত দূর্ঘটনার শিকার হচ্ছে মানুষ। প্রাপ্ত তথ্যমতে, ধলঘাটার ১২ হাজার মানুষের জন্য একটিই মাত্র ঘাট। বিগত ২০ বছর আগে নির্মিত হয়েছিল  জেটিঘাটটি । ঘাটের ইজারাদার আকতার আহমদ জনান , জেটিটি নিমার্ণের শুরু থেকেই মানুষ উঠা-নামা করতে সমস্যায় পড়তে হয়।  জোয়ারের সময় এই জেটি দিয়ে চলাচল করা অনেকটা দুরুহ হয়ে দাঁড়িয়েছে। কোন রোগী আনা নেওয়া করতে  মরাত্মক সমস্যা হচ্ছে। প্রতিদিন হাটু পরিমাণ কাঁদা ডিঙ্গিয়ে জেটির কাছে আসতে হয়। এ ছাড়া জেটি মাঝখানে ভেঙ্গে পড়েছে।
ধলঘাটা ইউনিয়ন পরিষদের চেয়াম্যান কামরুল হাসান বলেন, জেটিটির কারণে পুরো ইউনিয়ন এখন অন্ধকার। জেটিটি পরিত্যক্ত ঘোষণা করে নতুন জেটি নিমার্ণের জন্য কক্সবাজার জেলা পরিষদ চেয়ারম্যান ও এলজিডিই’র বরাবরে আবেদন করা হয়েছে।

সাব্বির// এসএমএইচ//৯ই সেপ্টেম্বর, ২০১৮ ইং ২৫শে ভাদ্র, ১৪২৫ বঙ্গাব্দ

Share.

Comments are closed.