তিন দেশের মুদ্রার চেয়ে এগিয়ে টাকা

0

নিজস্ব প্রতিবেদক:

বিজয়ের ৪৭ বছরে অর্থনীতি, ব্যবসা-বাণিজ্য ও মানবসম্পদ উন্নয়নে এগিয়ে চলেছে এ দেশ। সেই সঙ্গে দেশের মুদ্রা টাকার অবস্থানও শক্তিশালী হয়েছে। দক্ষিণ এশিয়ার দেশগুলোর মধ্যে পাকিস্তান, নেপাল ও শ্রীলংকার মুদ্রার মানের চেয়ে টাকা এগিয়ে রয়েছে।

অপরদিকে মালদ্বীপ, ভারত, ভুটান ও আফগানিস্তানের মুদ্রার চেয়ে মানে কিছুটা পিছিয়ে টাকা। তবে প্রতিযোগিতা করছে। দক্ষিণ এশিয়ার দেশগুলোর মুদ্রার সঙ্গে টাকার মানের তুলনামূলক চিত্র-

পাকিস্তানপাকিস্তানি মুদ্রার মানের চেয়ে বেশ এগিয়ে বাংলাদেশি মুদ্রা টাকা। বাংলাদেশি ১ টাকার বিনিময়ে বর্তমানে ১ দশমিক ৬০ পাকিস্তানি রুপি পাওয়া যাচ্ছে। সে ক্ষেত্রে বাংলাদেশি ১০ হাজার টাকা পকেটে থাকলে পাবেন ১৬ হাজার পাকিস্তানি রুপি।

আবার আন্তর্জাতিক মুদ্রা মার্কিন ডলারের বিপরীতে পাকিস্তানি মুদ্রার চেয়ে টাকা অনেক এগিয়ে। যেখানে প্রতি ডলারের বিনিময়ে বর্তমানে ৮৫ টাকা পাওয়া যায় সেখানে গত শুক্রবারের সর্বশেষ হিসাব অনুযায়ী এক ডলারের বিপরীতে ১৪৪ পাকিস্তানি রুপি গুনতে হয়, যা এ যাবৎকালের সর্বোচ্চ। হঠাৎ করেই এদিন ১ ডলারের বিপরীতে ১০ রুপি বেড়ে গেছে পাকিস্তানি মুদ্রার দর।

গত বৃহস্পতিবারও ১ ডলার সমান ১৩৪ রুপি ছিল। শুক্রবার সকালে লেনদেনের শুরুতেই ১ ডলার সমান ১৪২ রুপি হয়। পরে তা ১৪৪ রুপিতে ঠেকে। সে হিসাবে প্রতি ডলার ক্রয়ে টাকার চেয়ে ৫৯ পাকিস্তানি রুপি বেশি লাগছে।

নেপাল : নেপালি রুপির দাম টাকার চেয়ে কম। বর্তমানে বাংলাদেশি ১ টাকার বিনিময়ে ১ দশমিক ৩৬ নেপালি রুপি পাওয়া যায়। সে হিসাবে ১০ হাজার টাকা পকেটে থাকলে মিলবে ১৩ হাজার ৬০০ নেপালি রুপি। আবার মার্কিন ডলারের বিপরীতে নেপালি মুদ্রার চেয়ে টাকা এগিয়ে।

যেখানে প্রতি ডলারের বিনিময়ে বর্তমানে ৮৫ টাকা পাওয়া যায় সেখানে সর্বশেষ হিসাব অনুযায়ী এক ডলারের বিপরীতে ১১১ নেপালি রুপি গুনতে হয়।

শ্রীলংকা : সার্কভুক্ত দেশ শ্রীলংকায় বাংলাদেশি ১ টাকার বিনিময়ে পাওয়া যাবে ২ দশমিক ১৫ শ্রীলংকান রুপি। সে হিসাবে ১০ হাজার টাকা পকেটে থাকলে মিলে যাবে ২১ হাজার ৫০০ শ্রীলংকান রুপি।

প্রতি মার্কিন ডলারের বিনিময়ে বর্তমানে ৮৫ টাকা পাওয়া যায়, সেখানে শ্রীলংকায় পাওয়া যাচ্ছে ১৭৯ রুপি। এছাড়া ভারতের এক রুপির বিপরীতে ১ টাকা ২০ পয়সা গুনতে হচ্ছে।

যদিও সাম্প্রতিক সময়ে বাংলাদেশের টাকা ভারতের রুপির চেয়ে শক্তিশালী অবস্থানে রয়েছে। ডলারের বিপরীতে অব্যাহতভাবে পড়ছে রুপির দাম। গতকাল শুক্রবারও এক ডলার কিনতে ভারতীয়দের খরচ করতে হচ্ছে ৬৯.০৬ রুপি।

শুধু তা-ই নয়, ডলারের পাশাপাশি বাংলাদেশি টাকার বিপরীতেও দরপতন হয়েছে ভারতীয় রুপির। অপরদিকে বাংলাদেশের এক টাকায় ভুটানের মুদ্রা গুলট্রাম ৮৪ পয়সা পাওয়া যায়, আফগানিস্তানের মুদ্রা আফগানী ৯১ পয়সা এবং মালদ্বীপের মুদ্রা রুপিহা ১৯ পয়সা পাওয়া যায়।

সাব্বির// এসএমএইচ//৪ঠা ডিসেম্বর, ২০১৮ ইং ২০শে অগ্রহায়ণ, ১৪২৫ বঙ্গাব্দ

Share.

Comments are closed.