আবারও পাকিস্তানকে হতাশায় ডুবালেন ফিঞ্চ

0

স্পোর্টস ডেস্ক:

প্রথম ওয়ানডেতে আগে ব্যাট করে ক্যারিয়ারের প্রথম সেঞ্চুরি করেছিলেন হারিস সোহেল। কিন্তু সেখানে বাধ সাধেন অস্ট্রেলিয়ান অধিনায়ক অ্যারন ফিঞ্চ। দ্বিতীয় ওয়ানডেতে ক্যারিয়ারের প্রথম সেঞ্চুরি করেন মোহাম্মদ রিজওয়ান। এখানে বাধ সাধলেন অস্ট্রেলিয়ান অধিনায়ক। টানা দুই ম্যাচে দুটি শতক হাঁকিয়ে ম্যাচ নিজেদের করে নিলেন ফিঞ্চ। এতে করে পাঁচ ম্যাচের ওয়ানডে সিরিজ ২-০ তে পিছিয়ে পড়লো পাকিস্তান।

রোববার বাংলাদেশ সময় বিকেল পাঁচটায় সংযুক্ত আরব আমিরাতে শারজায় দ্বিতীয় ওয়ানডেতে মুখোমুখি হয় পাকিস্তান-অস্ট্রেলিয়া। টানা দ্বিতীয়বারের মতো টস জিতে ব্যাটিংয়ের সিদ্ধান্ত নেন পাকিস্তান অধিনায়ক শোয়েব মালিক। কিন্তু টস ভাগ্য ভালো হলেই যে ম্যাচ জিতবেন তা সবসময় হয়ে উঠে না।

ব্যাটিংয়ে নেমে দলীয় স্কোরবোর্ডে কোনও রান না তুলতেই বিদায় নেন ইমাম-উল-হক। দলীয় ৩৫ রানে শান মাসুদ বিদায় নেন। আগের ম্যাচের সেঞ্চুরিয়ান হারিস সোহেল রিজওয়ানকে নিয়ে শুরুর ধাক্কা সামলানোর চেষ্টা করেন। কিন্তু ব্যক্তিগত ৩৪ রানে উইকেটের পেছনে ক্যাচ দিয়ে ফেরেন তিনি। এরপর উমর আকমলকে দ্রুতই ফেরত পাঠান নাথান লিয়ন। পঞ্চম উইকেটে অধিনায়ক মালিক এসে রিজওয়ানের সঙ্গে জুটি বেঁধে রানের চাকা সচল রাখতে গড়েন ১১২ রানের গুরুত্বপূর্ণ জুটি। দলীয় ২৩৯ রানের মালিক ৬০ রান করে বিদায় নেন। অপরদিকে মোহাম্মদ রিজওয়ান তার ক্যারিয়ারের প্রথম সেঞ্চুরি তুলে নেন। ২৫৪ রানের সময় রিজওয়ান ১২৬ বলে ১১টি চারের সাহায্যে ১১৫ রান করে আউট হন। শেষ দিকে ফাহিম আশরাফ (১৪) ও ইমাদ ওয়াসিমের (১৯) রানে দলীয় স্কোর ৭ উইকেটে ২৮৪ রানে গিয়ে থামে পাকিস্তানের।

অস্ট্রেলিয়ার পক্ষে রিচার্ডসন ও কার্টার নেইল দুইটি, লিয়ন, জাম্পা ও ফিঞ্চ একটি করে উইকেট লাভ করেন।

বিশাল লক্ষ্য তাড়া করতে নেমে উদ্বোধনী জুটিতে ২৬ বছরের পুরনো রেকর্ড নিজেদের করে নেন অস্ট্রেলিয়ার দুই ওপেনার উসমান খাজা ও অ্যারেন ফিঞ্চ। এ দুজন প্রথম উইকেট জুটিতে ২০৯ রানের পার্টনারশীপ গড়েন। আর এতে করে শারজায় উদ্বোধনী জুটিসহ যে কোনো জুটিতে সর্বোচ্চ রানের রেকর্ড নিজেদের করে নেন দুই অস্ট্রেলিয়ান।

এর আগে শারজাহ মাঠে ১৯৯৩ সালের ৪ ফেব্রুয়ারি সাঈদ আনোয়ার ও রমিজ রাজা ২০৪ রানের উদ্বোধনী জুটি গড়েন। এছাড়াও অস্ট্রেলিয়ার হয়ে ২০০১ সালের ১৪ জানুয়ারি ব্রিসবেনে ওয়েস্ট ইন্ডিজের বিপক্ষে অ্যাডাম গিলক্রিস্ট ও মার্ক ওয়াহ উদ্বোধনী জুটিতে ২০৬ রান সংগ্রহ করেছিলেন। অর্থাৎ, ১৮ বছর আগের করা সেই জুটির রেকর্ডও নিজেদের করে নেন ফিঞ্চ-খাজা জুটি।

তবে উদ্বোধনী জুটির সর্বোচ্চ রানের রেকর্ডটি পাকিস্তানের দখলে। ২০১৮ সালের ২০ জুলাই জিম্বাবুয়ের বিরুদ্ধে ইমাম-উল-হক ও ফাখর জামান ৩০৪ রান সংগ্রহ করেছিল। যা এখন পর্যন্ত ওয়ানডে ক্রিকেটের সেরা উদ্বোধনী জুটি।

আর অস্ট্রেলিয়ানদের মধ্যে ২০১৭ সালের ২৬ জুন অ্যাডিলেডে পাকিস্তানের বিপক্ষে ডেভিড ওয়ার্নার ও ট্রাবিস হেডের উদ্বোধনী জুটিটিই এখন পর্যন্ত শীর্ষে রয়েছে। এ দুই ওপেনার উদ্বোধনী জুটিতে সংগ্রহ করেছিলেন ২৮৪ রান।

খাজা দলীয় ২০৯ রানের মাথায় ১০৯ বলে ৮৮ রান করে বিদায় নিলেও আরেকপ্রান্তে ঠিকই সেঞ্চুরি তুলে নেন অধিনায়ক ফিঞ্চ। এতে করে জয় পেতে কোনও বেগই পেতে হয়নি অস্ট্রেলিয়ার। শেষ পর্যন্ত অধিনায়ক ফিঞ্চ ১৪৩ বলে ১১টি চার ও ৬টি ছয়ের সাহায্যে অপরাজিত ১৫৩ রানের ইনিংস খেলেন। এতে করে ৮ উইকেটের বিশাল ব্যবধানে জয় পায় অসিরা।

পাকিস্তানের পক্ষে ইয়াসির শাহ একটি উইকে লাভ করেন।

সিরিজের তৃতীয় ওয়ানডে ২৭ মার্চ আবুধাবিতে অনুষ্ঠিত হবে। দুর্দান্ত সেঞ্চুরির সুবাদে প্লেয়ার অব দ্য ম্যাচের পুরস্কার উঠে অস্ট্রেলিয়ার অধিনায়কের হাতে।

 

 নিলা চাকমা/এসএমএইচ/   সোমবার, ২৫ মার্চ ২০১৯, ১১ চৈত্র ১৪২৫

Share.

Comments are closed.