বাংলাদেশে ফণী দুর্বল হয়ে ঢুকবে

0

আবহাওয়া অধিদপ্তর বলছে ভয়ঙ্কর ঘূর্ণিঝড় ফণী বাংলাদেশের উপকূলে শুক্রবার সন্ধ্যায় আঘাত হানতে শুরু করবে। তবে তার গতি শক্তি কমবে। শুক্রবার সকালে ভারতের ওডিশা রাজ্যের পুরী উপকূলীয় অঞ্চলে ফণী আঘাত হানে ২০০ কিলোমিটার বেগে।ভারতীয় আবহাওয়া অফিস জানিয়েছে, কিছুটা গতি শক্তি কমে ফণী শুক্রবার দুপুর পর্যন্ত ওডিশায় তাণ্ডব চালাবে ফণী। তারপর তা এগোতে থাকবে পশ্চিমবঙ্গ ও বাংলাদেশের দিকে।

বাংলাদেশের আবহাওয়া অধিদপ্তর জানায়, প্রবল ঘূর্ণিঝড় ফণী প্রায় অর্ধেক গতিবেগ নিয়ে বাংলাদেশে প্রবেশ করবে। সে সময় বাতাসের গতিবেগ ঘণ্টায় ১০০-১২০ কিলোমিটার থাকতে পারে।ফণী সাতক্ষীরা, খুলনা, বাগেরহাট, বরিশাল অঞ্চলের দিক থেকে ফরিদপুর, ঢাকা হয়ে ভারতের মেঘালয়ের দিকে যাবে।এদিকে ফণীর প্রভাবে শুক্রবার সকাল থেকে ঢাকাসহ সারাদেশে বৃষ্টি হচ্ছে। মোংলা, পায়রা বন্দরে ৭ নম্বর বিপদ সংকেত বহাল রাখা হচ্ছে। এছাড়া চট্টগ্রাম সমুদ্রবন্দরের জন্য জারি করা হয়েছে ৬ নম্বর বিপদসংকেত। কক্সবাজার সমুদ্রবন্দরকে ৪ নম্বর স্থানীয় হুঁশিয়ারি সংকেত দেখিয়ে যেতে বলা হয়েছে।ঘূর্ণিঝড় মোকাবেলায় এবার আগেভাগেই জানমাল রক্ষায় ব্যাপক প্রস্তুতি নিয়েছে বাংলাদেশ সরকার।

যুক্তরাজ্য সফররত প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা ঘূর্ণিঝড় মোকাবেলায় সর্বাত্মক প্রস্তুতি নেওয়ার জন্য সংশ্নিষ্ট কর্তৃপক্ষকে নির্দেশ দিয়েছেন। এছাড়া আজ শুক্রবার জুমআ’র নাজামে বিশেষ দোয়া করার আহ্বান জানিয়েছেন।

Share.

Comments are closed.