গ্যাসের দাম: এপারে বেড়েছে, ওপারে কমেছে

0

নিজস্ব প্রতিবেদক :

বাংলাদেশের সব পর্যায়ে গ্যাসের দাম বাড়ানো হলেও একই দিনে ভারতে গ্যাসের দাম কমানো হয়েছে। বাজেটের আগেই সিলিন্ডার প্রতি ১০০ টাকা ৫০ পয়সা করে দাম কমিয়ে মোদি সরকার এই সুখবর দিলেন।

মূলত আন্তর্জাতিক বাজারে তরল এলপিজির বাজারমূল্য এবং টাকা ও ডলারের রূপান্তরের দর কমায় এই সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়েছে বলে জানিয়েছে ভারতের ইন্ডিয়ান অয়েল কর্পোরেশন।

তারা বলছে, ভর্তুকিহীন রান্নার গ্যাসের দাম সিলিন্ডার প্রতি ৭৩৭.৫০ টাকা থেকে কমে দাঁড়ালো ৬৩৭ টাকা। এছাড়া গৃহস্থালির কাজে ব্যবহার করা এলপিজির দামে ভর্তুকি দেয় সরকার, ফলে সেই গ্যাসের দাম কমে হবে ৪৯৪ রুপি ৩৫ পয়সা। বাকি ১৪২ রুপি ৬৫ পয়সা ভর্তুকি হিসেবে দেওয়া হবে। আর সেই টাকা ভোক্তার ব্যাঙ্ক অ্যাকাউন্টে সরাসরি জমা হবে বলে বিবৃতিতে জানানো হয়েছে।

অন্যদিকে বাংলাদেশে আবাসিক ক্ষেত্রে এক চুলা গ্যাসের দাম ৭৫০ টাকা থেকে ৯২৫ টাকা এবং ২ চুলার ক্ষেত্রে ৮০০ টাকা থেকে বাড়িয়ে ৯৭৫ টাকা নির্ধারণ করা হয়েছে। আর মিটার যুক্ত চুলায় প্রতি ঘনমিটার গ্যাসের দাম নির্ধারণ করা হয়েছে ১২.৬০ টাকা। সিএনজি ৩২ টাকা থেকে বাড়িয়ে ৪৩ টাকা করা হয়েছে।

এছাড়া শিল্প ও বিদ্যুত খাতেও বাড়ানো হয়েছে গ্যাসের দাম। এর মধ্যে, রেস্টুরেন্টের বিদ্যুতের দাম বেড়ে ২৩ টাকা হয়েছে, শিল্প প্রতিষ্ঠানগুলোতে ১০.৭০ টাকা। বিদ্যুৎ ও সার কারখানায় প্রতি ঘনমিটারে গ্যাসের দাম বাড়ানো হয়েছে ৪.৪৫ টাকা। এছাড়া গড়ে প্রতি ঘনমিটার গ্যাসের দাম বেড়েছে ৯ টাকা ৮০ পয়সা।

 সাব্বির//১লা জুলাই, ২০১৯ ইং ১৭ই আষাঢ়, ১৪২৬ বঙ্গাব্দ

Share.

Comments are closed.