সুস্বাদু আপেল ভর্তা

0

অনলাইন ডেস্ক

আপেল দিয়ে জ্যাম, সালাদ বা পাই তো নিশ্চয়ই খেয়েছেন! কিন্তু আপেল ভর্তা কি খেয়েছেন কখনো? টক-ঝাল-মিষ্টি স্বাদে অপূর্ব আপেলের চাটনি।

চাইলে আপনিও ঘরে বসে তৈরি করতে পারেন সুস্বাদু টক-ঝাল-মিষ্টি আপেল ভর্তা। চলুন শিখে নেই আপেল ভর্তার রেসিপি।

প্রথমেই ৪-৫টি সবুজ আপেল ধুয়ে গ্রেটার দিয়ে কুচি করে নিন। এরপর ১টা কাঁচা মরিচ ও কয়েকটা ধনেপাতা-কুচি, টালা শুকনা মরিচ ১টি, লবণ (পরিমাণ মতো), সামান্য চিনি, ১ টেবিল-চামচ সরিষার তেল, দু-তিন কোঁয়া রসুন মিহি কুচি, অল্প তেঁতুল দিয়ে খুব ভালো করে মাখিয়ে নিন।

ব্যস হয়ে গেল মুখরোচক মজাদার আপেল ভর্তা। নিজের স্বাদ অনুযায়ী টক, ঝাল, মিষ্টি ব্যবহার করুন।

প্রসঙ্গত, বিদেশী ফল হলেও আপেল আমাদের দেশে বেশ সহজলভ্য। সকাল কিংবা বিকেলের নাস্তার টেবিলে কিংবা টিফিনে অনেকেই আপেল রাখেন। আপেল বেশ সুস্বাদু ও হালকা সুগন্ধযুক্ত ফল।

অন্যান্য ফলের মতো আপেলের চিনি রক্তের চিনির মাত্র বাড়িয়ে দেয় না। ফলে ডায়াবেটিসের রোগীরা নিশ্চিন্তে পরিমাণমতো আপেল খেতে পারেন। আপেলে কোনো লবণ নেই, তাই আপেল থেকে অতিরিক্ত লবণ খাবার কোনো সম্ভাবনা নেই। আপেলে পর্যাপ্ত বোরন আছে, যা হাড়কে শক্ত রাখতে সাহায্য করে ও ব্রেইনের স্বাস্থ্য ঠিক রাখে। ডায়রিয়া হলে তাও সারাতে সাহায্য করে আপেল।

সাব্বির=৩১শে আগস্ট, ২০১৯ ইং ১৬ই ভাদ্র, ১৪২৬ বঙ্গাব্দ

Share.

Comments are closed.