একটি সেতুর অভাবে:১৫ বছর ধরে বিচ্ছিন্ন সন্দ্বীপের মুছাপুর গ্রাম

চট্টগ্রাম ব্যুরো:

১৫ বছর আগে একটি সেতু ভেঙে যাওয়ার পর থেকে বিচ্ছিন্ন অবস্থায় রয়েছে সন্দ্বীপের মুছাপুর গ্রাম। শুধু সেতুটি পূনরায় নির্মাণ করা না হওয়ার কারণে গ্রামের বাসিন্দারা যাতায়ন ব্যবস্থায় দুর্ভোগ নেমে এসেছে। ১৫ বছরেও এ দুর্ভোগ থেকে রেহাই মিলছে না। এলাকাবাসী বাঁশের সাঁকোতে করে যাতায়ন করলেও কবে এ দুর্ভোগের রেহাই মিলবে তা কেউ জানে না।
মুছাপুর গ্রামের মধ্য দিয়ে ছিলো ৬০ ফিটের একটি সেতু। ১৫ বছর আগে সেটি ভেঙে যায়। বর্তমানে সরকারী গুরুদাস প্রাইমারী স্কুলের পাশে নড়বড়ে বাঁশের সাঁকোটি দিয়ে ঝুঁকি নিয়ে পারাপার করছে স্কুলের শিক্ষার্থী ও স্থানীয় লোকজন। ধুপের খালের পশ্চিম পাড়ের মানুষগুলোকে প্রতিনিয়ত বাজার, সন্দ্বীপ টাউন, স্কুল ও কলেজ সহ যাতীয় কাজের জন্য যাতায়াত করতে হয় এই সাঁকো দিয়ে। বর্ষা মৌসুমে পানি ও জোয়ার বেশি থাকায় সাঁকোটি প্রায় ডুবে থাকে। এর ফলে এই সাঁকো দিয়ে স্থানীয় লোকজন এখন মোটেও যাতায়াত করতে পারে না।
স্থানীয় বাসিন্দা নাজমুল হাসান বলেন, আমরা পুরোপুরি বিচ্ছিন্ন অবস্থায় আছি। একে তো দ্বিপ উপজেলা তার উপর চলাচলের সেতুটি ভাঙা। ১৫ বছর ধরে সাঁকো দিয়ে যাতায়ত করছি। স্কুল পড়–য়া ছেলেমেয়েদের কষ্টের মধ্যে দিয়ে যেতে হয়। প্রায় সময় সাঁকো থেকে পড়ে লোকজন আহত হয়। এমপি আমাদের সেতু করে দেওয়ার প্রতিশ্রুতি দিলেও এখনো কোনো তৎপরতা দেখতে পাচ্ছি না।
কথা হলে স্থানীয় মহিলা মেম্বার কুলসুমা বেগম বলেন, ২০১৭ সালের ডিসেম্বরে স্থানীয় সাংসদ অত্র এলাকায় উঠান বৈঠক করতে এলে তিনি সাঁকোটিকে ব্রিজ করে দেবেন বলে প্রতিশ্রুতি দেন। কিন্তু এখনো পর্যন্ত আমরা প্রতিশ্রুতির বাস্তবায়ন দেখছি না।
এ ব্যাপারে স্থানীয় সংসদ মাহফুজুর রহমান মিতা তিনি বলেন, সেতুটির অভাবে এলাকাবাসীর দুর্ভোগের সীমা নেই। আমি নিজে সেখানে গিয়ে গস্খামবাসীর কষ্ট দেখেছি। সেতুটি করার জন্য আমি অনেক চেষ্টা করেছিলাম। কিন্তু পর্যাপ্ত বরাদ্দ না থাকায় তা করা সম্ভব হয়নি। আগামী নির্বাচনে পুনরায় এমপি নির্বাচিত হলে আমি প্রথমে এ কাজইি করবো।
উল্লেখ্য বর্তমানে মুছাপুর ৪ নং ওয়ার্ডের পুরুষ মহিলা মিলে বাসিন্দা প্রায় সাড়ে ৩ হাজার। প্রতিনিয়ত যাতায়াতের ক্ষেত্রে তাদের দূর্ভোগের শেষ নেই।

সাব্বির// এসএমএইচ//৭ই জুলাই, ২০১৮ ইং ২৩শে আষাঢ়, ১৪২৫ বঙ্গাব্দ

Check Also

বিপদ জয় করে বিজয়ের দেশে ফিরে আসা

জার্নাল ডেস্ক : জাতিসংঘ শান্তিরক্ষা মিশনে অংশ নেওয়া বাংলাদেশ নৌ বাহিনীর জাহাজ ‘বিজয়’  সাক্ষাৎ বিপদ …

‘টাকা দিয়ে বিপদ কিনেছি’

জার্নাল ডেস্ক ‘টাকা দিয়ে বিপদ কিনেছি ‘।    এভাবেই নিজের হতাশার কথা  জানিয়েছেন বসনিয়ায় আটকে …