ফুটবল বিশ্বকাপের উন্মাদনায় ভাসছে শ্যামনগর

বিজয় মন্ডল:

দুয়ারে কড়া নাড়ছে ফুটবল বিশ্বকাপ। আর কয়েক ঘন্টার অপেক্ষা। রাশিয়ায় বসা ফুটবল বিশ্বকাপের এবারের আসরকে সামনে রেখে প্রীয় দলের সমার্থনে কিছু করে দেখাতে বসে নেই কেউ।

সাজ সাজ রবে উৎসবের আমেজে এখন গোটা বিশ্ব। সেদিক থেকে বাংলাদেশের প্রতিটি পথে প্রান্তরে এখন চলছে ফুটবলের উন্মাদনা।

কি গ্রাম কি শহর, কি নারি কি পুরুষ, আবাল বৃদ্ধা বনিতার মুখে এখন একটাই প্রসংঙ্গ। তা হলো ফুটবল বিশ্বকাপ। ব্রাজিল, আর্জেন্টিনা, জার্মানি কিংবা পর্তুগাল সমার্থকদের খুনসুটিতে তার সমর্থিত দেশই সেরা। আলোচনা চলছে দিনরাত। কে হবে চ্যাম্পিয়ন।

ফুটবল প্রেমীদের প্রীয় দেশের সমার্থনে সে দেশের পতাকা উত্তলনে চলছে প্রতিযোগিতা। কে কটা বা কে কত বড় পতাকা তুলতে পারে। ফুটবল যে বাঙালির আত্মায় মিশে আছে এটা তার পরিচয়।

ফুটবল বিশ্বকাপের উন্মাদনায় কোন অংশে পিছিয়ে নেই বাংলাদেশের সর্ব দক্ষিণের উপজেলা শ্যামনগর। দেদারছে বিক্রি হচ্ছে বিভিন্ন দেশের পতাকা, জার্ছি। ফুটবল যে বিশ্ব অর্থনীতিতেও প্রভাব ফেলে তা শ্যামনগরের আসলেও বোঝা যাবে।

শ্যামনগরের বিভিন্ন রাস্তা, সড়ক, অলি গলি, বাড়ির ছাদ ভরে উঠেছে ফুটবল প্রেমীদের সমার্থিত দেশের পতাকায়।

সমার্থিত দেশের জার্ছি পরে ঘুরছেন বিভিন্ন শ্রেণীর মানুষ। পোশাক বিক্রির দোকানথেকে ইলেকট্রনিক্স টিভি বিক্রির গুলোতেও ফুটবল প্রেমীদের উপচে পড়া ভিড় দেখা যাচ্ছে।

চায়ের দোকান থেকে বাড়ির খাবার টেবিল, স্কুল কলেজ কিংবা কর্মক্ষেত্র কোন খানেই থেমে নেই ফুটবলের আলোচনা।
প্রত্যেকের কাছে তার সমর্থিত দলই সেরা।

এককথায় বলা যায় সারা বিশ্বের সাথে
ফুটবল উদ্মাদনায় ভাসছে শ্যামনগর। অপেক্ষা কয়েক ঘন্টার। কে হবে সেরা? শেষ হাসি কে হাসবে এখন এটাই দেখার পালা।

সাব্বির// এসএমএইচ//১২ই জুন, ২০১৮ ইং ২৯শে জ্যৈষ্ঠ, ১৪২৫ বঙ্গাব্দ

Check Also

বিপদ জয় করে বিজয়ের দেশে ফিরে আসা

জার্নাল ডেস্ক : জাতিসংঘ শান্তিরক্ষা মিশনে অংশ নেওয়া বাংলাদেশ নৌ বাহিনীর জাহাজ ‘বিজয়’  সাক্ষাৎ বিপদ …

‘টাকা দিয়ে বিপদ কিনেছি’

জার্নাল ডেস্ক ‘টাকা দিয়ে বিপদ কিনেছি ‘।    এভাবেই নিজের হতাশার কথা  জানিয়েছেন বসনিয়ায় আটকে …