বিনামূল্য জরায়ু মুখে ক্যান্সার পূর্ব অবস্থা নির্ণয় (ঠওঅ) ক্যাম্প অনুষ্ঠিত

নিজস্ব প্রতিবেদক :

সচেতনতাই পারে মা-বোনের জীবন বাঁচাতে এই শ্লোগান নিয়ে গত ১৪ জুলাই ২০১৮ তারিখ ঢাকা আহ্ছানিয়া মিশনের স্বাস্থ্য সেক্টর পরিচালিত হেনা আহমেদ হাসপাতালে বিনামূল্যে জরায়ু মুখে ক্যান্সারের পূর্ব অবস্থা নির্ণয় (ঠওঅ) ক্যাম্প অনুষ্ঠিত হলো। এই ক্যাম্পের মূল দুটি উদ্দেশ্য ছিলো প্রথমত এলাকার সুবিধা বঞ্চিত ও যে সকল নরীদের স্বাস্থ্য সচেতনতার অভাব আছে সে সকল নারীদের জরায়ুর মুখের ক্যান্সার কেন নির্নয় করা প্রয়োজন তা জানানো এবং দ্বিতীয়ত ক্যান্সার হওয়ার আগেই যাতে সনাক্ত করা যায় ও সঠিক চিকিৎসার মাধ্যমে নারীরা সুস্থ্য থাকতে পারে তার ব্যবস্থা গ্রহণ।

সচেতনতা মূলক আলোচনায় ঢাকা আহ্ছানিয়া মিশনের ক্লিনিক ম্যানেজার ডা: নায়লা পারভীন বলেন অল্প বয়সে বিয়ে হলে, বিবাহিত জীবন দশ বছরের বেশী হলে, বয়স ত্রিশ বছর হয়ে গেলে, রিতুস্্রাব বন্ধ হয়ে গেলে, ধাতু ভাংগা ও সাদাস্্রাব হলে, অনিয়মিত রক্তস্্রাব হলে, সহবাস সংক্রান্ত যে কোন জটিলতায় বা পরিবারের কেউ জরায়ু ক্যান্সারে আক্রান্ত হয়ে থাকেন তাহলে জরায়ু মুখে ক্যান্সার পূর্ব অবস্থা নির্ণয় বা ঠওঅ পরীক্ষা করতে হবে ।

সচেতনতা মূলক আলোচনার শেষে ঢাকা থেকে আগত বিশেষ প্রশিক্ষণপ্রাপ্ত চিকিৎসক, নার্স ও স্বাস্থ্য কর্মীরা দিনব্যাপি ভায়া ক্যাম্প থেকে মুন্সিগজ্ঞ জেলার শ্রীনগর থানার হাঁসাড়া ইউনিয়নের ৮০ জন নারীর বিনামূল্যে জরায়ু মুখে ক্যান্সার পূর্ব অবস্থা নির্ণয় করেন।

উল্লেখ্য যে, হেনা আহমেদ হাসপাতাল প্রতিষ্ঠার পর থেকে বিভিন্ন বিষয়ে বিশেষজ্ঞ ক্যাম্পের মাধ্যমে ঢাকা আহ্ছানিয়া মিশনের স্বাস্থ্য সেক্টর এলাকাবাসীর জন্য বিভিন্ন মূখি স্বাস্থ্য সেবা প্রদান করে আসছে।

সাব্বির// এসএমএইচ//১৪ই জুলাই, ২০১৮ ইং ৩০শে আষাঢ়, ১৪২৫ বঙ্গাব্দ

Check Also

বিপদ জয় করে বিজয়ের দেশে ফিরে আসা

জার্নাল ডেস্ক : জাতিসংঘ শান্তিরক্ষা মিশনে অংশ নেওয়া বাংলাদেশ নৌ বাহিনীর জাহাজ ‘বিজয়’  সাক্ষাৎ বিপদ …

‘টাকা দিয়ে বিপদ কিনেছি’

জার্নাল ডেস্ক ‘টাকা দিয়ে বিপদ কিনেছি ‘।    এভাবেই নিজের হতাশার কথা  জানিয়েছেন বসনিয়ায় আটকে …