রোহিঙ্গারা ন্যায়বিচার ও নিজ দেশে ফিরতে চান: গুতেরেস

কক্সবাজার প্রতিনিধি:

জাতিসংঘ মহাসচিব অ্যান্তনিও গুতেরেস বলেছেন, কক্সবাজারে আশ্রয়শিবির থেকে রোহিঙ্গাদের হত্যা ও ধর্ষণের যে বিবরণ শুনেছি, তা অকল্পনীয়। তারা ন্যায়বিচার ও নিরাপদে নিজ দেশে ফিরে যেতে চান।
সোমবার কুতুপালংয়ে রোহিঙ্গা আশ্রয় শিবিরে ঘোরার ফাঁকে ক্ষুদে ব্লগ টুইটারে দেয়া এক পোস্টে তিনি এ মন্তব্য করেন।
উখিয়ার বালুখালীর ট্রানজিট পয়েন্টে রোহিঙ্গাদের সঙ্গে জাতিসংঘের মহাসচিব অ্যান্তনিও গুতেরেস ও বিশ্ব ব্যাংকের প্রেসিডেন্ট জিম ইয়ং কিমে কথা হয়।
সংক্ষিপ্ত বৈঠকে রোহিঙ্গারা মিয়ানমারের সেনা ও দেশটির উগ্র বৌদ্ধদের নির্যাতনের কথা তুলে ধরেন। পাশাপাশি পূর্ণ মর্যাদা নিয়ে তারা নিজেদের ভূমিতে ফিরে যেতে চান বলে জানিয়েছেন।
রোহিঙ্গারা বলেন, নাগরিক হিসেবে পূর্ণ অধিকার ছাড়া মিয়ানমার কখনো রোহিঙ্গাদের জন্য নিরাপদ হবে না। তাই সব অধিকার নিয়েই আমরা নিজ দেশে ফিরে যেতে চাই।

সকাল ৯টায় বাংলাদেশ বিমানের একটি বিশেষ ফ্লাইটে অ্যান্তনিও গুতেরেস ও জিম ইয়ং কিম কক্সবাজার পৌঁছান।
বেলা সাড়ে ১১টার দিকে তারা বালুখালী ট্রানজিট পয়েন্টে যান। সেখানেই রোহিঙ্গাদের সঙ্গে বৈঠক করেন তারা।
উখিয়া উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা নিকারুজ্জামান বলেন, জাতিসংঘের মহাসচিব ও বিশ্ব ব্যাংকের প্রেসিডেন্ট ট্রানজিট পয়েন্ট ঘুরে দুপুর ২টার দিকে উখিয়ার কুতুপালং শরণার্থী ক্যাম্প পরিদর্শন করবেন।
সেখানে তারা রোহিঙ্গাদের থাকা, খাওয়া ও চিকিৎসা সেবা পর্যবেক্ষণ করবেন। পাশাপাশি মিয়ানমার থেকে পালিয়ে আসা কুতুপালংয়ের ডি-৫ ব্লকে নির্যাতিত অর্ধশত রোহিঙ্গা নারী ও একশ পুরুষের সঙ্গে আলাপ করবেন।
এরপর আন্তর্জাতিক অভিবাসন সংস্থা (আইওএম) এর পাঁচটি প্রাথমিক স্বাস্থ্য সেবাকেন্দ্র পরিদর্শন করবেন। সর্বশেষ একই ব্লকে প্রেস ব্রিফিং করার কথা রয়েছে।

সাব্বির// এসএমএইচ//২রা জুলাই, ২০১৮ ইং ১৮ই আষাঢ়, ১৪২৫ বঙ্গাব্দ

Check Also

বিপদ জয় করে বিজয়ের দেশে ফিরে আসা

জার্নাল ডেস্ক : জাতিসংঘ শান্তিরক্ষা মিশনে অংশ নেওয়া বাংলাদেশ নৌ বাহিনীর জাহাজ ‘বিজয়’  সাক্ষাৎ বিপদ …

‘টাকা দিয়ে বিপদ কিনেছি’

জার্নাল ডেস্ক ‘টাকা দিয়ে বিপদ কিনেছি ‘।    এভাবেই নিজের হতাশার কথা  জানিয়েছেন বসনিয়ায় আটকে …