পাবলিক প্লেস হিসেবে ঢাকা নদী বন্দরে ধূমপান নিষিদ্ধ ঘোষনা

0

প্রেস রিলিজ:

পাবলিক প্লেস হিসাবে ঢাকা নদী বন্দরে ধূমপান নিষিদ্ধ ঘোষনা এবং এছাড়া  লঞ্চের ক্যান্টিনে সিগারেট বিক্রি বন্ধ করতে বিভিন্ন সিদ্ধান্ত গ্রহন করা দরকার”। ২৯ অক্টোবর, ২০১৮ সোমবার, ঢাকা নদী বন্দর সম্মেলন কক্ষে, ঢাকা আহ্ছানিয়া মিশন ও ক্যাম্পেইন ফর টোবাকো ফ্রি কিডস্ এর সহযোগিতায়, ঢাকা নদী বন্দর, বাংলাদেশ অভ্যন্তরীণ নৌ-পরিবহন কর্তৃপক্ষ আয়োজিত ”নৌ-পরিবহণ ও নৌ-বন্দরে তামাক নিয়ন্ত্রণ আইন বাস্তবায়নে করণীয়” বিষয়ক মতবিনিময় সভায় বক্তারা এ কথা বলেন।

তাঁরা আরো বলেন, পরিবহন ক্ষেত্রকে ধূমপানমুক্ত রাখতে ও তামাক নিয়ন্ত্রণ আইন বাস্তবায়নে বিআইডাব্লিউটিএ ও এর আওতাধীন বিভিন্ন সংস্থা/এসোসিয়েশন কর্তৃক যথাযথ উদ্যোগ নিতে হবে, যেমন- তামাক নিয়ন্ত্রণে বিভিন্ন নোটিস জারি করা, চিঠি প্রদান, মনিটরিং করা, সাইনেজ প্রদর্শন, নৌ-বন্দর এলাকায় তামাক বিরোধী বিলবোর্ড স্থাপন, এ সংক্রান্ত মোবাইল কোর্ট পরিচালনা করা,  লঞ্চ, স্টিমার বা অন্যান্য জলযান সমূহে তামাকজাত দ্রব্য বিক্রি নিষেধ করে দেয়া, মাইকে ঘোষনার মাধ্যমে যাত্রীদের সতর্ক করা, বিভিন্ন পরিবহন মালিক ও শ্রমিক সমিতির কর্তৃপক্ষ কর্তৃক নৌ-পরিবহনসমূহ ধূমপানমুক্ত রাখার বিষয়ে বিভিন্ন উদ্যোগ গ্রহণ, যাত্রাকালীন সময়ে টেলিভিশনে বিভিন্ন তামাক বিরোধী ভিডিও প্রচারের মাধ্যমে যাত্রীদের সতর্ক ও সচেতন করা যে আইন অনুযায়ী পাবলিক পরিবহন ধূমপানমুক্ত। বিভিন্ন সিদ্ধান্ত গ্রহনের পাশাপাশি সভা শেষে সভাপতি পাবলিক প্লেস হিসাবে ঢাকা নদী বন্দরে ধূমপান নিষিদ্ধ ঘোষনা করেন।

মূল প্রবন্ধ উপস্থাপন করেন ঢাকা আহ্ছানিয়া মিশনের সহকারী পরিচালক ও তামাক নিয়ন্ত্রণ প্রকল্পের সমন্বয়কারী মো: মোখলেছুর রহমান।

সভার সভাপত্তিত্ব করেন, এ. কে. এম আরিফ উদ্দিন , যুগ্ম পরিচালক( পোর্ট), ঢাকা নদী বন্দর, বিআই ডাব্লিউটিএ, এছাড়াও উপস্থিত ছিলেন মোঃ আলমগীর কবির, যুগ্ম পরিচালক( টেরিফ), ঢাকা নদী বন্দর, বিআই ডাব্লিউটিএ, মোঃ আব্দুস সালাম, যুগ্ম পরিচালক( সি এন্ড প), বিআই ডাব্লিউটিএ,  মোঃ মিজানুর রহমান, উপ-পরিচালক (পোর্ট) , বিআই ডাব্লিউটিএ, এ কে এম কাউসারুল ইসলাম, উপ-পরিচালক (পোর্ট), বিআই ডাব্লিউটিএ, সিনিয়র পুলিশ সুপার, ঢাকা, ফায়ার সার্ভিস ও সিভিল ডিফেন্স, আনসার ও ভিডিপি, বাংলাদেশ অভ্যন্তরীণ নৌ-চলাচল(যাপ) সংস্থা, নৌ-থানা, লঞ্চমালিক সমিতি, বাংলাদেশ নৌযান শ্রমিক ফেডারেশন, বিআই ডাব্লিউটিএ শ্রমিক-কর্মচারী ইউনিয়ন, বাংলাদেশ ঘাট শ্রমিকলীগ, নৌকা মাঝি সমবায় সমিতি,  জাতীয় তামাক নিয়ন্ত্রণ সেল ও বিভিন্ন তামাক বিরোধী ও ক্যাম্পেইন ফর টোব্যাকো ফ্রি কিডস প্রতিনিধি উপস্থিত ছিলেন। সভা শেষে তামাক বিরোধী সচেতনতা বৃদ্ধির লক্ষে প্রচারণামূলক কার্যক্রমের অংশ হিসেবে লঞ্চের যাত্রীদের মধ্যে লিফলেট, স্টিকার বিতরণ করা হয়।

সাব্বির// এসএমএইচ//২৯শে অক্টোবর, ২০১৮ ইং ১৪ই কার্তিক, ১৪২৫ বঙ্গাব্দ

Share.

About Author

Comments are closed.