হাজতে ধর্ষণ: ওসিসহ ৫ পুলিশের বিরুদ্ধে মামলা

0

খুলনা প্রতিনিধি

আদালতের নির্দেশে খুলনা জিআরপি (রেলওয়ে) থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) উছমান গণি পাঠানসহ পাঁচ পুলিশ সদস্যের বিরুদ্ধে মামলা দায়ের করা হয়েছে। শুক্রবার জিআরপি থানায় ভিকটিম নিজেই বাদী হয়ে মামলা করেছেন।

পাকশি থেকে গঠিত তদন্ত কমিটির প্রধান ফিরোজ আহমেদ এ মামলার বিষয়টি সাংবাদিকদের নিশ্চিত করছেন।

তিনি বলেন, আদালতের নির্দেশে এবং জেল গেট থেকে প্রাপ্ত তথ্যের ভিত্তিতে মামলাটি দায়ের করা হয়েছে। ভিকটিম নিজেই এ মামলার বাদী। মামলায় জিআরপি থানার অফিসার ইনচার্জ (ওসি), ঘটনার রাতের ডিউটি অফিসার এবং অজ্ঞাত আরও তিন পুলিশকে আসামি করা হয়েছে। এ মামলার তদন্তকারী অফিসার পাকশি এসপি অফিস থেকে নির্ধারণ করা হবে।

তিনি জানান, নির্যাতন হেফাজতে মৃত্যু নিবারণ আইন ২০১৩ এর ১৫ ধারায় মামলাটি দায়ের করা হয়েছে। মামলা নম্বর- ৩। তারিখ ০৯.০৮.১৯. খুলনা জিআরপি থানা।

প্রসঙ্গত, গত ২ আগস্ট যশোর থেকে ট্রেনে খুলনায় আসার পথে খুলনা রেলস্টেশনে কর্তব্যরত জিআরপি পুলিশের সদস্যরা ওই গৃহধূকে মোবাইল চুরির অভিযোগে আটক করে। পরদিন তাকে পাঁচ বোতল ফেনসিডিলসহ একটি মামলায় গ্রেপ্তাতার দেখিয়ে খুলনার সিনিয়র জুডিশিয়াল ম্যাজিস্ট্রেট আমলি আদালত ফুলতলায় পাঠানো হয়।

৪ আগস্ট আদালতে জামিন শুনানিকালে বিচারককে ওই নারী জানান, জিআরপি থানায় নির্যাতন ও সংঘবদ্ধ ধর্ষণের শিকার হয়েছেন তিনি। আদালতের নির্দেশে ৫ আগস্ট তার ডাক্তারি পরীক্ষা সম্পন্ন হয়। তবে পরীক্ষার রিপোর্ট এখনও তৈরি হয়নি।

সাব্বির=১০ই আগস্ট, ২০১৯ ইং ২৬শে শ্রাবণ, ১৪২৬ বঙ্গাব্দ

Share.

About Author

Comments are closed.