‘আমার বিরুদ্ধে ষড়যন্ত্র চলছে’

0

নিজস্ব প্রতিবেদক:

আসন্ন সংসদ নির্বাচনে সতন্ত্র প্রার্থী হিসেবে মনোনয়নপত্র কিনে ছিলেন বর্তমানে সোশ্যাল মিডিয়ায় সবচেয়ে আলোচিত ব্যক্তি হিরো আলম। আলোচিত এই তারকার মনোনয়নপত্র বাতিল করেছেন বগুড়া জেলা রিটার্নিং কর্মকর্তা ফয়েজ আহমেদ। রোববার (২ ডিসেম্বর) সকালে একাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনের মনোনয়নপত্র যাছাই-বাছাই শুরু হবার পরই তার মনোনয়ন বাতিল হয়।

মনোনয়পত্র বাতিলের যে অভিযোগ উঠেছে তা অস্বীকার করেছেন হিরো আলম। তিনি মনে করছেন তার বিরুদ্ধে ষড়যন্ত্র করা হয়েছে। সেজন্য মনোনয়ন বহাল রাখতে আপিল করবেন বলে জানিয়েছেন হিরো আলম।

রোববার দুপুরে বাংলাদেশ জার্নালকে হিরো আলম বলেন, ‘ নির্বাচন কমিশন থেকে অভিযোগ করা হয়েছে আমি সমর্থকের ভুয়া স্বাক্ষর জমা দিয়েছি। এটা সত্য নয়। এটা আমাকে নিয়ে ষড়যন্ত্র। নির্বাচন কমিশন পুরোপুরি সত্যটা যাচাই করতে পারেনি।’

মনোনয়ন বহাল রাখতে আপিল করবেন বলে জানিয়েছেন হিরো আলম বলেন , ‘তার নির্বাচনী এলকা বগুড়া-৪ আসনে মোট ভোটার রয়েছেন ৩০১২৮১। তার এক শতাংশ ভোটারের সংখ্যা দাঁড়ায় ৩১২১ জন। মনোনয়নপত্র জমা দেয়ার সময় ৩৫২৪ ভোটার সমর্থকের স্বাক্ষর সম্বলিত একটি তালিকা যুক্ত করে দিয়েছেন। ৩৫২৪ জন সমর্থকের মধ্য থেকে ১০জন সমর্থকের সঙ্গে কথা বলেছে নির্বাচন কমিশন। সেখানে ৭ জন সমর্থক স্বীকারোক্তি দিয়েছেন যে তারা আমাকে প্রার্থী হিসেবে সমর্থন করেন। ৩ জন বলেছেন তারা আমার সমর্থক নয়, তারা স্বাক্ষরও করেনি। এটা নিয়েই আপত্তি করেছে নির্বাচন কমিশন।’

আমার বিরুদ্ধে ষড়যন্ত্র করেছে উল্লেখ্য করে হিরো আলম বলেন ,’ নির্বাচন কমিশন যাচাই করেনি যে আমার সমর্থকদের ভয় ভীতি দেখিয়ে মিথ্যে কথা বলানো হয়েছে। এলাকায় কেউ কেউ চায় না আমি নির্বাচন করি। হিংসা জ্বলে পুড়ে মরে তারা আমাকে নিয়ে।’

নিজের বানানো মিউজিক ভিডিও দিয়ে সোশ্যাল মিডিয়ায় হুট করেই আলোচনায় আসে হিরো আলম। এরপর দেশে ও বলিউডে ছবিতে কাজ করা নিয়ে ফের আলোচনায় আসেন তিনি। সর্বশেষ তিনি আলোচনায় আসে জাতীয় সংসদ নির্বাচনে মনোনয়নপত্র কিনে।

সাব্বির// এসএমএইচ//২রা ডিসেম্বর, ২০১৮ ইং ১৮ই অগ্রহায়ণ, ১৪২৫ বঙ্গাব্দ

Share.

About Author

Comments are closed.